মঠবাড়িয়ায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতিকে কুপিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষ

 

স্টাফ রিপোর্টার : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মোঃ আবু হানিফ খানকে কুপিয়ে মারাত্মকভাবে জখম করেছে প্রতিপক্ষ। সোমবার সন্ধ্যার পর উপজেলা যুবলীগের কার্যালয়ের কাছে এ হামলার ঘটনা ঘটে বলে জানান উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক সেলিম মাতুব্বর।
তিনি জানান, সন্ধ্যার পর কয়েকজন নেতাকর্মীর সাথে উপজেলা যুবলীগের অফিসের সামনে অবস্থান করছিলেন আবু হানিফ। এ সময় প্রতিপক্ষের ২০-২৫ জনের একটি দল অতর্কিতভাবে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তাদের উপর হামলা চালায়। এ সময় তারা উপজেলা যুবলীগের কার্যালয় ভাংচুর করে। ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আবু হানিফ খানের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম হয়। গুরুতর অবস্থায় আবু হানিফকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। শহরে টান টান উত্তেজনা বিরাজ করছে।

এর আগে রোববার সন্ধ্যায় মঠবাড়িয়া পৌর শহরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে সাবেক স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা এবং একটি মাদ্রাসার ৪র্থ শ্রেণির কর্মচারী মোঃ ইদ্রিস হোসেনকে কুপিয়ে মারাত্মকভাবে জখম করে প্রতিপক্ষরা। ইদ্রিস এবং আবু হানিফ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক গ্রুপের লোক। গুরুতর আহত ইদ্রিসকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় নাসির উদ্দিন মাতুব্বর বাদী হয়ে ৯ জনের নাম উল্লেখ করে এবং আরও ৭-৮ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে মঠবাড়িয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পুলিশ তরিকুল ইসলাম নামের এজাহারভুক্ত একজনকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে।

0Shares

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।